1. rakibchowdhury877@gmail.com : Narayanganjer Kagoj : Narayanganjer Kagoj
  2. admin@narayanganjerkagoj.com : nkagojadmin :
শনিবার, ১৬ জানুয়ারী ২০২১, ১১:০৭ পূর্বাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম :
ফরিদ আহমেদ লিটনকে প্রান্ত পালের ফুলেল শুভেচ্ছা না’গঞ্জ জেলা ছাত্র-যুব ও শ্রমিক অধিকার পরিষদের প্রতিনিধি সভা অনুষ্ঠিত ফরিদ আহমেদ লিটনকে স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতাকর্মীদের ফুলেল শুভেচ্ছা লিটনকে আদর্শনগর সমাজ উন্নয়ন কমিটির নেতাকর্মীদের ফুলেল শুভেচ্ছা লিটনকে দাপা বালুরঘাট ট্রাক চালক সমিতির নেতাকর্মীদের ফুলেল শুভেচ্ছা মোমেন সিকদারকে কাশিপুর যুব সমাজের ফুলেল শুভেচ্ছা ফরিদ আহমেদ লিটনকে স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতাকর্মীদের ফুলেল শুভেচ্ছা ফতুল্লা থানা আ’লীগের যুগ্ম সম্পাদক নির্বাচিত হওয়ায় লিটনকে ফুলেল শুভেচ্ছা মাদকাসক্ত চিকিৎসায় ১৭ বছরের অগ্রযাত্রায় ‘প্রয়াস’ পল্টনে ছাত্রদল নেতা রনির কুশপত্তলিকা দাহ আইনকে বৃদ্ধাঙ্গুল দেখিয়ে শুক্রবারও দোকান খোলা ফতুল্লা ব্লাড ডোনার্সের দিনব্যাপী কর্মসূচি পালিত নেতা-কর্মীদের ভালবাসায় সিক্ত হলেন রিয়াদ মোঃ চৌধুরী ফতুল্লায় মনিরুলের বিরুদ্ধে চাঁদাবাজি ও মারধরের অভিযোগ শিবু মাকের্টে মহানগর মা ও শিশু হাসপাতালের উদ্বোধন

শিল্পপতি আবু সিদ্দিকের কত জায়গা প্রয়োজন?

নারায়ণগঞ্জের কাগজ
  • প্রকাশিত সময় : শনিবার, ১২ ডিসেম্বর, ২০২০
  • ১৪৮ বার পঠিত
শিল্পপতি আবু সিদ্দিকের কত জায়গা প্রয়োজন?

ফতুল্লার মাসদাইর এলাকার একটি জায়গার পরিমাপ করার সময় স্থানীয়দের তোপের মুখে ক্যাডারদের নিয়ে পিছু হটেন শিল্পপতি আবু সিদ্দিক৷ শনিবার (১২ ডিসেম্বর) সকালে মাসদাইরের পাকাপুল এলাকায় এ ঘটনা ঘটে৷ ফলে কোর্ট থেকে কমিশন গেলেও মাসদাইর পাকাপুল এলাকার অমিমাংসিত জায়গার পরিমাপ নির্ধারণ হয়নি।

প্রত্যক্ষদর্শী একাধিক ব্যক্তি জানান, শনিবার সকাল ১০টার দিকে জায়গা পরিমাপের জন্য কমিশন এসে উপস্থিত হয়। এ সময় শিল্পপতি আবু সিদ্দিকের সাথে প্রতিপক্ষ হিরু হকদের মধ্যে কথা কাটাকাটি শুরু হয়৷ এতে পরিস্থিতি উত্তপ্ত হয়ে উঠে। এক পর্যায়ে আবু সিদ্দিক সঙ্গে ক্যাডারদের নিয়ে গেলেও স্থানীয়দের তোপের মুখে দৌড়ে পালান৷ মাসদাইর এলাকার একাধিক ব্যক্তি জানান, শিল্পপতি আবু সিদ্দিকের কত জায়গা প্রয়োজন? সে তো প্রায় এই এলাকার অর্ধেক জায়গা ক্রয় করে ফেলেছে আর কত প্রয়োজন তার?

এ সময়ে সালিশকারীদের মধ্যে জালাল প্রধান, নাসির উদ্দিন, কামাল চৌধুরী, মতি প্রধান, জাহিদ হাসান রোজেল, সিদ্দিকুর রহমানসহ স্থানীয় আরও কয়েকজন উপস্থিত ছিলেন৷

জমি মাপার জন্য কমিশন গেলে হিরু হক জানান, আগে আমাদের উভয়পক্ষের কাগজপত্র দেখেন, তারপর মাপেন। পঞ্চায়েত নেতারা জানান, হিরু হক গং কাগজপত্র দাখিল করলেও আবু সিদ্দিক কোন কাগজপত্র দাখিল করে নাই। এ নিয়ে কথা কাটাকাটি হলে এক পর্যায়ে পরিস্থিতি উত্তপ্ত হয়ে উঠে। পরে পাশের খালি জায়গা মাপতে নেওয়ার সময় উপস্থিত লোকজন জানান, এ জায়গার মালিক নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনের এমপির বেয়াই ফয়েজ আহম্মেদ লাভলু৷ এ কথা শোনার পর চুপ হয়ে যান আবু সিদ্দিক।

এরই মধ্যে কলমিস্ত্রি মন্টু এসে কমিশনের কাছে অভিযোগ করেন, তার জায়গা নিয়ে আবু সিদ্দিক জোর করে দখলের পায়তারা করছেন। এমন অভিযোগ করেন আরও কয়েকজন৷ এ সময় আবু সিদ্দিক দ্রুত স্থান ত্যাগ করতে চাইলে প্রতিপক্ষ ও এলাকাবাসীর তোপের মুখে পড়েন। এক পর্যায়ে নিজের লোকজন নিয়ে দ্রুত হেটে চলে যান আবু সিদ্দিক।

উল্লেখ্য, গত ২০ নভেম্বর শিল্পপতি আবু সিদ্দিকের লোকজনের বিরুদ্ধে জরুরি সেবা ৯৯৯ নম্বরে কল করে অভিযোগ করেন মাসদাইর পাকাপুল এলাকার ভুক্তভোগী আসমা বেগম (হিরু হকের বোন)। পরে পুলিশ এসে সিদ্দিকের লোকজনকে কাজ না করতে বলে চলে যায়। এরপর থেকে এ জায়গা নিয়ে একাধিকবার সালিশ হলেও কোন মিমাংসা হয়নি।

নিউজটি শেয়ার করুন :

আপনার মন্তব্য প্রদান করুন...

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর..

error: Content is protected !!